Content on this page requires a newer version of Adobe Flash Player.

Get Adobe Flash player

Dhaka, Thursday, 18 January 2018 ||
: :
শিরোনাম :
ব্রেকিং নিউজ :

আর্কাইভ

বিজ্ঞাপন :
মর্যাদা** আল-ওয়াদিয়াহ্‌ কারেন্ট প্লাস একাউন্ট - ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লি:         মুদারাবা মাসিক জমা প্রকল্প - ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লি:         নিরাময় ** মুদারাবা চিকিৎসা আমানত প্রকল্প - ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লিঃ         বন্ধন ** মুদারাবা বিবাহ আমানত প্রকল্প - ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লি:         ঘরণী** মুদারাবা গৃহিণী আমানত প্রকল্প - ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লি:         প্রবীণ ** মুদারাবা সিনিয়র সিটিজেন সঞ্চয়ী হিসাব - ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লি:         প্রয়াস** মুদারাবা মানিপ্ল্যান্ট আমানত প্রকল্প - ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লি:         উন্নতি** মুদারাবা ক্রোড়পতি আমানত প্রকল্প - ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লি:         অগ্রসর** মুদারাবা মিলিয়নিয়ার আমানত প্রকল্প- ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লি:         সম্মান - আল-ওয়াদিয়াহ্‌ প্রিমিয়াম একাউন্ট - ফার্স্ট সিকিউরিটি ইসলামী ব্যাংক লি:        

প্রচ্ছদ »

গর্ভাবস্থায় প্যারাসিটামল সেবনে দেরীতে কথা শেখে সন্তান

রির্পোটার:     ||   13 Jan 2018 04:33:38 PM Saturday BdST প্রিন্ট

র‍্যাপিড পিআর নিউজঃ
 
গর্ভাবস্থায় জ্বর এলে কিংবা মাথা ও শরীর ব্যথা হলে এসিটামিনোফেন জাতীয় ওষুধ দেখা যায়। এসিটামিনোফেনের প্রচলিত নাম হলো প্যারাসিটামল। প্যারাসিটামলে সাময়িক উপশম হলেও তা গর্ভের সন্তানের দীর্ঘমেয়াদী ক্ষতি করে ফেলতে পারে।
 
আমেরিকার গবেষকরা জানিয়েছেন গর্ভকালীন প্রথম তিনমাসে প্যারাসিটামল সেবন করলে গর্ভের কন্যা সন্তানের দেরীতে কথা শেখার সম্ভাবনা থাকে। যেসব মায়েরা প্যারাসিটামল সেবন করেননি তাদের তুলনায় এই ঝুঁকি ৬ গুন বেশি বলে জানিয়েছেন গবেষকরা।
 
নিউ ইয়র্কের মাউন্ট সিনাই হাসপাতালের গবেষকদের এই গবেষণাটি চালানো হয়েছে ৭৫৪ জন অন্তঃসত্ত্বা নারীর উপর। তাদের সবাই আট থেকে তের সপ্তাহের অন্তঃসত্ত্বা ছিলেন। তাদেরকে প্রশ্ন করা হয় যে তারা কতগুলো প্যারাসিটামল সেবন করেছেন। সেই সঙ্গে তাদের মূত্র পরীক্ষা করা হয় এসিটামিনোফেনের পরিমাণ দেখার জন্য।
 
৩০ মাসের শিশু যদি ৫০টির কম শব্দ বলতে পারে তাহলে সেটাকে কথা শেখায় বিলম্ব হিসেবে ধরে নেয়া হয়। গবেষণার ফলাফলে দেখা গেছে যেই নারীদের মূত্রে এসিটামিনোফেনের পরিমাণ বেশি ছিল তাদের সন্তানরা কথা শেখায় বিলম্ব করেছে। বিশেষ করে কন্যা সন্তানের ক্ষেত্রে এই প্রভাব বেশি লক্ষ্য করা গেছে।
 
গবেষক ড. শান্না সোয়ান বলেন, ‘যেহেতু সন্তানের কথা শেখার বিলম্বের সঙ্গে এসিটামিনোফেনের সম্পর্ক পাওয়া গেছে, সেহেতু গর্ভবতী নারীদের উচিত এধরণের ওষুধ নিয়ন্ত্রিত পরিমাণে সেবন করা অথবা এড়িয়ে চলা।’ গবেষণাটি ইউরোপিয়ান সাইকিয়াট্রি জার্নালে প্রকাশিত হয়েছে।
 
এর আগেও গবেষণায় দেখা গেছে যে, এসিটামিনোফেন গর্ভের সন্তানের বুদ্ধিমত্তায় নেতিবাচক প্রভাব ফেলে। এমনকি গর্ভের কন্যা সন্তানের গর্ভধারণ ক্ষমতার উপরও ক্ষতিকর প্রভাব ফেলে। প্যারাসিটামল ‘প্রোস্টাগ্ল্যান্ডিন ই টু’ হরমোনের উপর প্রভাব ফেলে। গর্ভের সন্তানের প্রজননতন্ত্র তৈরিতে এই হরমোন গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। 
 
১৩ জানুয়ারি, ২০১৮, শনিবার, ৩০ পৌষ, ১৪২৪ , শীতকাল, ২৫ রবিউস-সানি, ১৪৩৯

এই সংবাদ সম্পর্কে আপনার মতামত দিন

পাঠকের মন্তব্য (0)

সর্বশেষ সংবাদ

নামাজের সময়সূচী

ওয়াক্ত সময় শুরু
ফজর ০৫:২৫
জোহর ১২:১০
আসর ১৫:১৫
মাগরিব ১৭:৩৬
এশা ১৮:৫৫
সূর্যোদয় ০৬:৪৫
সূর্যাস্ত ১৭:৩৬
তারিখ ১৮ জানুয়ারী ২০১৮